ভাই’রাল রিকশা’চালক ও শি’শুর ছবির গল্প

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে দি’নব্যা’পী ঘুরছে এক রিক্শাচালক ও এক শি’শুর ছবি। সাড়া ফেলে দিয়েছে ভী’ষ’ণ মায়া ও আদর মাখানো এই ছবিটি। ছবিতে দেখা যাচ্ছে, মধ্যবয়স্ক এক ব্যক্তি রিকশা চালিয়ে যাচ্ছেন এবং আর তার গ’লা জ’ড়ি’য়ে আছে ছোট্ট একটি শি’শু।
ছবিটি তুলেছেন উমা’র মু’সান্না। তিনি আন্তর্জাতিক ইস’লামী বিশ্ববিদ্যালয়ে সিএসইর শিক্ষার্থী। আজ বুধবার সকালে ছবিটি তোলেন তিনি। ‘Sweetest thing you will see today’ শিরোনাম দিয়ে নিজের ফেসবুকে ছবিটি পোস্ট করার সঙ্গে সঙ্গে সেটি ব্যা’প’ক হারে ছ’ড়ি’য়ে পড়ে। হাজার হাজার মানুষ ছবিটি শেয়ার করেছেন, পছন্দ করেছেন। অসংখ্য ই’তি’বা’চক মন্তব্য জ’ড়ো হয়েছে ছবিটির নিচে। বিভিন্ন ফেসবুক গ্রুপ থেকেও ছবিটি শেয়ার করা হচ্ছে।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

ছবি তোলার ঘ’ট’না স’ম্প’র্কে উমা’র মু’সান্না গণমাধ্যমকে বলেন, সকাল ১০টা পনেরোয় চট্টগ্রামের আগ্রাবাদ থেকে বড়পুল যাওয়ার পথে টেম্পু থেকে এই দৃশ্যটা দেখি। বাচ্চাটা খুব সুন্দর করে হাসছিলো, মন ভালো করার মতো। তাই ছবিটা তুলে ফেলি।
উমা’র মু’সান্না জানান, ছোট্ট শি’শুটি ওই ব্যক্তির সন্তান কী’ না তিনি জানেন না। তার কাছে ছোট্ট শি’শুটিকে ওই ব্যক্তির সন্তানই মনে হয়েছে। ছবিটির শিরোনামের মানে জানতে চাইলে উমা’র মু’সান্না বলেন, আমা’র কাছে মনে হয়েছে একটা বাবা তার নিজের রিকশায় করে ছে’লেকে নিয়ে ঘুরতে বেরিয়েছেন এর চেয়ে মিষ্টি, সুন্দর কোনো দৃশ্য হতে পারে না। একটা সম্পদওয়ালা মানুষ তার বা’চ্চা’কে নিয়ে ড্রাইভে বের হয়, এই বাবাও সেরকমই বের হয়েছেন, তার সাধ্যের মধ্যে। আর ছে’লেটাও দারুণ উ’পভো’গ করছিল, বারবার হাসতে হাসতে বাবার কাঁ’ধে মা’থা রাখছিল। বাবা হয়তো অন্যদিকে মুখ করে কা’ন্না লু’কা’নোর চেষ্টা করছেন। একটা ঐশ্বরিক মু’হূ’র্ত তৈরিতে মানুষের যে বি’ত্তে’র প্রয়োজন হয় না সেটাই মা’থা’য় এসেছিল।
উমা’র মু’সান্না জানান, তিনি নিয়মিত ছবি তোলেন। তবে বেশিরভাগই প্রকৃতির। মানুষের চেয়ে ছবির তোলার সাবজেক্ট হিসেবে প্রকৃতিই তার বেশি পছন্দ। কিন্তু মানুষকে সাবজেক্ট করে ছবি তুলেই সবার মন জয় করে নিয়েছেন উমা’র মু’সান্না।

Leave a Reply

Your email address will not be published.