শুক্র গ্রহে কি সত্যি প্রাণ আছে ? চাঞ্চল্যকর দাবি নাসার বিজ্ঞানীর !

শুক্র গ্রহে কি সত্যি প্রাণ আছে ? মঙ্গলের পর শুক্র গ্রহেও নাকি আছে জীবন এমনটাই দাবি করছে নাসার বিজ্ঞানীরা। তার মুখ্য কারণ হলো সেখানে পাওয়া গেছে ফসফিন গ্যাস।

আর সেটা থেকেই বিজ্ঞানীরা দাবি জানাচ্ছে পৃথিবীর সবচেয়ে কাছের গ্রহ শূক্রতেও থাকতে পারে প্রাণ। আমরা জানি ওই গ্রহ সবচেয়ে গরম আর কার্বন ডাই অক্সাইডে ভর্তি। আর এই গ্রহ উল্টো পথে পূর্ব থেকে পশ্চিম দিকে ঘুরে বেড়ায়। তবে গবেষণা বলছে তাপমাত্রা এতোটাই বেশী যে কঠিন পদার্থকে গলিয়ে দিতে পারে সহজেই।

কি করে বোঝা গেলো যে ওই গ্রহে আছে প্রাণ। চিলির আটাকামা মরুভূমি থেকে ও হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জ থেকে শক্তিশালী টেলিস্কোপ দিয়ে নজর রাখা হয়েছিল শুক্রের দিকে। তাই দেখা গেছে আপার ক্লাউড লেক। আর সেখানেই নাকি আছে ফসফিন গ্যাস তা কিনা প্রাণ ধারণের জন্য উপযোগী। বিজ্ঞানীরা বলছে ফসফিনকে ধ্বংস করতে পারে ওই গ্রহের চারদিকে পুঞ্জীভূত হওয়া মেঘ। তবে এখনই প্রাণ থাকার নিশ্চিত তা পুরোপুরি সঠিক বলে দাবি করা সম্ভব হচ্ছে না।

কার্ডিফ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অফ ফিজিক্স এস্ট্রোনমির গবেষক বিজ্ঞানী গ্রেভিস বলেছেন, সেই গ্রহে ফসফরাসের উপস্থিতি আছে বলে শুক্র গ্রহে প্রাণের উপস্থিতি আছে সেটা নিশ্চিত করে বলা সম্ভব না। তাই এই বিষয়ে আরো বেশি গবেষণা দরকার।

Leave a Reply

Your email address will not be published.