ঠিক কোন বয়সে কোন সাফল্য আপনি পেতে পারেন, এবার সেটাই জানাল গবেষণা

কোনও মানুষই সারা জীবন ‘অসফল’ থাকতে পারেন না। সাফল্য প্রতিটি মানুষের জীবনে অবশ্যম্ভাবী। কিন্তু তলিয়ে ভাবলে টের পাওয়া যায়, সারা জীবন সাফল্যের মানে বা গুরুত্ব একই রকম থাকে না। বয়সের সঙ্গে সঙ্গে সাফল্য তার চেহারা বদলায়।

ঠিক কোন বয়সে কোন সাফল্য আপনি পেতে পারেন, এবার সেটাই জানাল গবেষণা। জ্যোতিষ নয়, অনিশ্চয় কোনও ভবিষ্যদ্বাণী নয়, খোদ বিজ্ঞানই জানাচ্ছে কোন বয়সে কোন ধরনের সাফল্য আপনার জীবনে আসতে পারে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যলয়ের মনোবিজ্ঞান বিভাগের একটি গবেষণা জানাচ্ছে, জীবনের চলার পথে কতগুলো ‘সাফল্য-চূড়া’ থাকেই। এক এক বয়সে মানুষ এক এক রকমের সাফল্য লাভ করে।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম কিউরিওসিটি.কম-এ প্রকাশিত এক প্রতিবেদন অনুযায়ী এই গবেষণা জানাচ্ছে, ৭ বছর বয়সে মানুষ শিখতে শুরু করে। নতুন নাম, নতুন তথ্য শিখতে থাকে। এই শেখার সাফল্য-চূড়ায় সে পৌঁছয় ২২ বছর বয়সে। কিন্তু অন্যের মুখ মনে রাখার ক্ষমতা তার সাফল্য-চূড়া ছোঁয় আরও ১০ বছর পরে, ৩২ বছর বয়সে।

এক্ষেত্রে আবার পুরুষ ও নারীর মধ্যে একটা বিভাজনরেখা টেনেছে এই গবেযণা। এ থেকে জানা যাচ্ছে, পুরুষ তার সর্বোচ্চ আয়ের চূড়ায় পৌঁছয় ৪৮ বছর বয়সে। কিন্তু সেখানে মহিলারা তা অর্জন করেন ৩৯ বছরে। কিন্তু উভয়ের গাণিতিক মেধা শিখর স্পর্শ করে ৫০ বছরে পৌঁছে।

৫১ বছর বয়সে নারী-পুরুষ নির্বিশেষে মানুষ অন্যের অনুভূতিগুলিকে অনুভব করার শীর্ষে পৌঁছয়। ভাষার উপরে তার দখল সব থেকে বেশি আসে ৬৯ বছর বয়সে। ৭৪ বছর বয়সে সে দৈহিক স্বস্তিবোধের শিখরে পৌঁছয়। আর জীবনে তৃপ্তিবোধের শিখর মাত্র দু’বার আসে। ২৩ আর ৬৯ বছর বয়সে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.