ওজন কমানো এবং সাদা হয়ে যাওয়া চুল কালো করার সমাধান এই একটি মশলায়।

মেথির ব্যবহার কিন্তু কেবলমাত্র রান্নাঘ’রেই সীমাবদ্ধ নয়। শ’রীর সুস্থ রাখতে, ত্বক ও চুলের সৌন্দর্য বৃ’দ্ধি করতে, ওজ’ন কমাতে এমনকী আয়ুর্বেদিক বিভিন্ন ওষুধ প্র’স্তুত করতেও মেথির গুণ অনস্বী’কা’র্য।

মেথি এমনই একটি ভেষজ উপাদান যাতে রয়েচে অসংখ্য স’ব প্রয়োজ’নীয় মিনারেল, যেমন, আয়রন, পটাশিয়াম, ক্যালশিয়াম, জিঙ্ক, ম্যাগনেশিয়াম ইত্যাদি। মেথির মধ্যে লুকিয়ে রয়েছে কী কী গুণাগুণঃ দৈনন্দিন জীবনে রান্নায় মেথি ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

রান্নায় একটা আলাদা ফ্লেভার যোগ করার ক্ষেত্রে মেথির জুরি মেলা ভার। তাছা’ড়াও এই মেথির মধ্যে লুকিয়ে রয়েছে নানা গুণাগুণ, যা আ’পনাকে এ’কাধিক স’মস্যা থেকে দিতে পারে মুক্তির খোঁ’জ। ১) ওজ’ন কমাতে মেথিঃ আ’গেই ব’লেছি অসংখ্য খনিজ প’দার্থের উৎস হল মেথি।

পাশাপাশি এতে রয়েছে ভিটামিন বি-৬, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ও অ্যান্টি ফ্লেমেটরি উপাদান, যা ওজ’ন নিয়ন্ত্রণে রাখতে বি’শেষভাবে সাহায্য করে। মেথি অ’তিরিক্ত খাবার খাওয়ার ইচ্ছে প্রশমিত করে এবং এর মধ্যে থাকা ফাইবার দে’হের ওজ’ন নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে। এছাড়াও মেথি শ’রীরে

মেটাবলিজম বাড়িয়ে হজম ক্ষ’মতা বাড়ায়, যারফলে শ’রীর থেকে বাড়তি ওজ’ন কমতে সুবি’ধা হয়। ২) ক’লেস্টরল কমাতেঃ র’ক্ত থেকে খারাপ ক’লেস্টরলের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে মেথি। শুধু তাই নয় শ’রীরে খারাপ ক’লেস্টরলের কারণে স’ম্ভাব্য ক্ষ’য়ক্ষ’তির হাত থেকেও র’ক্ষা করে মেথি। তাই আ’পনার প্র’তিদিনের খাদ্যতালিকার অ’প’রিহার্য উপকরণ হল মেথি।

সকালে খালি পেটে একগ্লাস মেথি ভেজানো জল রোজ খান দারুন কাজ দেবে। ৩) হৃদযন্ত্রকে সুস্থ রাখকেঃ শ’রীর থেকে অ্যাসিডের খারাপ প্র’ভাবকে দূরে রে’খে হৃদযন্ত্রকে সুস্থ রাখে মেথি। তাই মেথির দানা সারারা’ত জলে ভিজিয়ে রে’খে প’রের দিন সকালে উঠে খালি পেটে সেই জল পান করুন। এতে করে আ’পনার হৃদযন্ত্র থাকবে সুস্থ ও সতেজ।

৪) হজম শ’ক্তি বৃ’দ্ধিতেঃ মেথির মধ্যেথাকা ফাইবার-স’হ অন্যান্য উপাদান হজম ক্ষ’মতা বাড়াতে সাহায্য করে। তাই একইভাবে সারারা’ত ভিজিয়ে রাখা মেথির জল যদি পান করা যায়, তাহলে হজমের স’মস্যা দূরে রাখা যায়। ৫) র’ক্তচা’প নিয়ন্ত্রণেঃ মেথিতে থাকা পটাশিয়াম এবং ফাইবার উ’চ্চ র’ক্তচা’প নিয়ন্ত্রণে বি’শেষভাবে সাহায্য করে।

সেক্ষেত্রে কীভাবে খাবেন মেথি। প্রথমে ২-চামচ মেথির দানা জলে ফুটিয়ে নিন। এবার জল থেকে নিয়ে মেথি

দানা মিহি করে বেটে নিন। এবার সেটি সকালে খালি পেটে খান। উ’চ্চ র’ক্তচা’প নিয়ন্ত্রণে এই পথ্য খুবই কা’র্যকরী। এ তো গেল শ’রীর-স্বা’স্থ্য স’ম্প’র্কিত বি’ষয়। তবে জানেন কি, সৌন্দর্য বৃ’দ্ধিতেও মেথি খুবই অনবদ্য একটি উপকরণ

। জেল্লাদার ত্বক হোক বা সুন্দর চুল-স’বতেই মেথির ভুমিকা রয়েছে। ১) চুলের অকালপক্কতা দূর করতেঃ চুল অকালে পেকে যাওয়া দে’খে অনেকেই চুলে রঙ করাই শ্রেয় ব’লে মনে করেন।

কিন্তু চুলকে যদি ফের আ’গের রূপে ফেরানো যায়? আর এই কাজ’টি করতে মেথি বি’শেষভাবে কা’র্যকর। চুলের হা’রিয়ে যাওয়া মেলানিন ফিরিয়ে এনে চুলকে কালো করতে সাহায্য করে। উপকরণঃ ১। মেথি পাউডার এক চামচ। ২। আমলা পাউডার।

৩।প’রিমাণ মতো জল। প্রণালীঃ ১। মেথি এবং আমলকীর গুঁড়া ভাল করে মিশিয়ে নিন।

২। তার মধ্যে প’রিমাণমতো জল মিশিয়া নিয়ে কটা ঘন পেস্ট তৈরি করে নিন। ৩। এবার এই পেস্ট ভাল করে সারা চুলে লাগিয়ে

নিন। ৪। আধ ঘণ্টা মতো রে’খে ভাল করে ধুয়ে নিন। ৫। সপ্তাহে একবার করে এই প’দ্ধতি ব্যবহার করুন। ২) খুশকি দূর করতেঃ শীতকালে খুশকির স’মস্যা দূর করতে

মেথি খুবই উপকারি। উপকরণঃ ১। মেথি পাউডার আধ কাপ। ২। লেবুর রস। ৩। প’রিমাণমোত জল। প্রণালীঃ ১। মেথি পাউডার, লেবুর রস এবং জল খুব ভাল করে

মিশিয়ে নিয়ে একটা ঘন পেস্ট তৈরি করে নিন। ২। এবার সেই পেস্ট সারা চুলের গোড়ায়

খুব ভাল করে লাগিয়ে নিন। ৩। ১০-১৫ মিনিট মতো লাগিয়ে রে’খে জল দিয়ে ধুয়ে নিন। এই প’দ্ধতি সপ্তাহে দুদিন ব্যবহার করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.